২৪শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ / ১০ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ / ১৬ই জিলকদ, ১৪৪৫ হিজরি / রাত ৪:০৮

ভোটদানে বিরত থাকায় বাংলাদেশকে রাশিয়ার ধন্যবাদ

যুদ্ধ বন্ধে ইউক্রেন ত্যাগ করতে রাশিয়ার প্রতি আহ্বান জানিয়ে জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদে আনা প্রস্তাবে ভোটদানে বিরত থাকায় বাংলাদেশকে ধন্যবাদ জানিয়েছে রাশিয়া।

শুক্রবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) দিবাগত রাতে এক টুইট বার্তায় রাশিয়ান দূতাবাস এই ধন্যবাদ জানায়। টুইটে বলা হয়েছে, ‘রাশিয়াবিরোধী এমন প্রস্তাব পাস করে ইউক্রেন সংঘাতের অবসান ঘটানো যাবে না।’
এর আগে বৃহস্পতিবার রাতে ইউক্রেনে রাশিয়ার আক্রমণের নিন্দা ও যুদ্ধ বন্ধের আহ্বান জানিয়ে উত্থাপন করা একটি প্রস্তাব পাস করেছে জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদ। দুই প্রতিবেশী দেশে যুদ্ধের এক বছর পূর্তির আগের দিন সাধারণ পরিষদের জরুরি বিশেষ অধিবেশনে ১৪১ ভোটে প্রস্তাবটি পাস হয়। তবে বাংলাদেশসহ ৩২টি দেশ ভোট দেওয়া থেকে বিরত ছিল।

প্রস্তাবের বিপক্ষে ও রাশিয়ার পক্ষে ভোট দিয়েছে সাতটি দেশ। সেগুলো হলো- বেলারুশ, উত্তর কোরিয়া, ইরিত্রিয়া, মালি, নিকারাগুয়া ও সিরিয়াকে। সাবেক সোভিয়েত রাশিয়াভুক্ত কিরগিজিস্তান, তাজিকিস্তান এবং উজবেকিস্তানও এই প্রস্তাবের ক্ষেত্রে নিরপেক্ষ অবস্থান প্রকাশ করেছে।

অপরদিকে বাংলাদেশ, ভারত, চীন, পাকিস্তান, শ্রীলঙ্কা, দক্ষিণ আফ্রিকা, কিউবা, কঙ্গো, আর্মেনিয়া ও ভিয়েতনামসহ ৩২ দেশ ভোট দেয়নি।

দক্ষিণ এশিয়ার বাকি তিন দেশ আফগানিস্তান, নেপাল ও ভুটান প্রস্তাবের পক্ষে ভোট দিয়েছে। জাতিসংঘে জান্তাবিরোধী জাতীয় ঐকমত্যের সরকারের (এনইউজি) প্রতিনিধিত্ব করা মিয়ানমারের ভোট পড়েছে প্রস্তাবের পক্ষে।

২০২২ সালের ২৪ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনে আক্রমণের পর থেকে এ পর্যন্ত রাশিয়ার বিরুদ্ধে জাতিসংঘে আনা চারটি প্রস্তাবের একটিতে পক্ষে ভোট দিয়েছে বাংলাদেশ; বাকি সবকটিতেই ভোটদানে বিরত থেকেছে।

জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদের এ ধরনের প্রস্তাব মানতে কোনো দেশ আইনত বাধ্য নয়। তবে এসব প্রস্তাবের রাজনৈতিক গুরুত্ব রয়েছে।