সপ্তাহজুড়ে সূচক ও লেনদেনের বড় উত্থান


এম.এ.টি রিপন প্রকাশের সময় : ডিসেম্বর ২৬, ২০২০, ৪:৩৬ পূর্বাহ্ন / ২২
সপ্তাহজুড়ে সূচক ও লেনদেনের বড় উত্থান

বিদায়ী সপ্তাহে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) মূল্য সূচকের বড় উত্থানে লেনদেন শেষ হয়েছে। আলোচ্য সপ্তাহে ডিএসইতে টাকার অংকে লেনদেনও বেড়েছে বড় ব্যবধানে। গত সপ্তাহে ডিএসইতে ৫৩.৬৬ শতাংশ লেনদেন বেড়েছে। অপর বাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জেও (সিএসই) একই চিত্রে লেনদেন শেষ হয়েছে।

ডিএসই ও সিএসইর সাপ্তাহিক বাজার পরযালোচনা করলে এ তথ্য পাওয়া যায়।

আলোচিত সপ্তাহে ডিএসইতে ৫ হাজার ৬২৩ কোটি ৭৫ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। আগের সপ্তাহে লেনদেন হয়েছিল ৩ হাজার ৬৫৯ কোটি ৮২ লাখ ৯২ হাজার  টাকার শেয়ার। অর্থাৎ সপ্তাহের ব্যবধানে ডিএসইতে লেনদেন বেড়েছে এক হাজার ৯৬৩ কোটি ৯২ লাখ ৮ হাজার  টাকার বা ৫৩ দশমিক ৬৬ শতাংশ।

সপ্তাহ শেষে ডিএসইর প্রধান মূল্যসূচক ডিএসইএক্স এর অবস্থান দাঁড়ায় ৫ হাজার ২১৮ দশমিক ৩৭ পয়েন্ট। সপ্তাহের শুরুতে সূচকটির অবস্থান ছিল ৫ হাজার ১০৮ দশমিক ০৪ পয়েন্টে। সপ্তাহের ব্যবধানে সূচক বেড়েছে ১৬ ১১০ দশমিক ৩৩ পয়েন্ট বা ২ দশমিক ১৬ শতাংশ।

ডিএসইর সেরা ৩০ কোম্পানির সূচক ডিএসই-৩০ এক সপ্তাহের ব্যবধানে ১ হাজার ৭৯৮ দশমিক ৬২ পয়েন্ট থেকে ১ হাজার ৮৭৬ দশমিক ৭৪ পয়েন্টে উঠে আসে।

আর ডিএসই শরীয়াহ সূচক ডিএসইএস এক হাজার ১৮০ পয়েন্ট থেকে বেড়ে হয়েছে এক হাজার ২০৩ দশমিক ৬৭ পয়েন্ট।

আলোচিত সপ্তাহে ডিএসইতে ৩৬৭টি কোম্পানির শেয়ার শেয়ার কেনাবেচা হয়েছে। এর মধ্যে দাম বেড়েছে ১০৯টির বা ২৯ দশমিক ৭০ শতাংশ কোম্পানির। আর ৫২ দশমিক ৫৮ শতাংশ বা  ৩৬৭টি কোম্পানির শেয়ারের দাম কমেছে। এ সময়ে  ৬২টি কোম্পানির শেয়ারের দাম ছিল অপরিবর্তিত।

আলোচ্য সপ্তাহে চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) ২৩২ কোটি ৪০ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। আর সিএসইসি সার্বিক সূচক সিএসপিআই বেড়েছে ২.১৪ শতাংশ।