চীনের হামলা হলে তাইওয়ানের পাশে থাকবে আমেরিকা


এম.এ.টি রিপন প্রকাশের সময় : সেপ্টেম্বর ১৯, ২০২২, ১:৩৯ অপরাহ্ন /
চীনের হামলা হলে তাইওয়ানের পাশে থাকবে আমেরিকা

চীনের হামলার শিকার হলে তাইওয়ানের পাশে থাকার আশ্বাস দিয়েছেন য্ক্তুরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। তিনি বলেন, তাইওয়ান হামলার শিকার হলে মার্কিন বাহিনী তাদের রক্ষা করবে। এ ক্ষেত্রে মার্কিন নীতির কোনও পরিবর্তন হয়নি।

সিবিএস নিউজকে সাক্ষাতকারে একথা বলেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট।

বাইডেন বলেন, যুক্তরাষ্ট্র তাইওয়ানের স্বাধীনতাকে সমর্থন করে না এবং ‘এক-চীন’ নীতিতে প্রতিশ্র“তিবদ্ধ। ওয়াশিংটন আনুষ্ঠানিকভাবে তাইপেকে নয় বেইজিংকে স্বীকৃতি দেয়।

রয়টার্স বলছে, তাইওয়ান ইস্যুতে যুক্তরাষ্ট্র দীর্ঘদিন ধরে ‘কৌশলগত অস্পষ্টতার’ নীতিতে আটকে আছে এবং তাইওয়ানের ওপর চীনা আক্রমণ হলে ওয়াশিংটন সামরিকভাবে প্রতিক্রিয়া জানাবে কিনা তা স্পষ্ট করেনি। তবে প্রেসিডেন্ট বাইডেনের সর্বশেষ এই মন্তব্য বিষয়টি স্পষ্ট করেছে যে মার্কিন বাহিনী প্রয়োজনে সামরিক হস্তক্ষেপ করবে।

বাইডেনের এই বক্তব্য নিশ্চিতভাবে বেইজিংকে ক্ষুব্ধ করবে। এশিয়ার পরাশক্তি এই দেশটি গত আগস্টে মার্কিন হাউসের স্পিকার ন্যান্সি পেলোসির তাইওয়ান সফরের সময়ও ব্যাপকভাবে ক্ষুব্ধ হয়েছিল।

তবে চীন বাইডেনের সর্বশেষ এই মন্তব্যের বিষয়ে তাৎক্ষণিকভাবে কোনো প্রতিক্রিয়া জানায়নি।

পূর্ব চীনের উপকূলে অবস্থিত স্ব-শাসিত দ্বীপ তাইওয়ান যা বেইজিং নিজেদের ভূখণ্ডের অংশ হিসেবে দাবি করে আসছে। যদিও নিজেদের স্বাধীন রাষ্ট্র বলে তাইওয়ান। দ্বীপটি নিয়ে চীনের সঙ্গে দীর্ঘদিনের কূটনৈতিক টানাপোড়েন চলছে ওয়াশিংটনের।